Latest News
রবিবার, ১৪ এপ্রিল ২০২৪ ।। ১লা বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
Home / আইন-আদালত / শারমিনের বাবা জামিনে মুক্ত

শারমিনের বাবা জামিনে মুক্ত

স্টাফ রিপোর্টার :
জামিনে মুক্তি পেয়েছেন বাল্য বিয়ে ঠেকানো যুক্তরাস্ট্রের উইমেন কারেজ অ্যাওয়াডপ্রাপ্ত শারমিন আক্তারের বাবা কবির হোসেন (৪৮)। স্ত্রীর দায়ের করা যৌতুক আইনের মামলায় তাকে রাজাপুর বাঘরি এলাকার ভাড়া বাসা থেকে মঙ্গলবার রাতে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। বুধবার দুপুরে তাকে জেল হাজতে পাঠানো হয়। আজ বৃহস্পতিবার জামিন শুমানির জন্য দিন ধার্য করেন আদালত। ঝালকাঠির জ্যেষ্ঠ বিচারিক হাকিম আদালতের বিচারক বেগম রুবাইয়া আমেনা শুনানি শেষে তাকে জামিন প্রদান করেন।
জানাযায়, শারমিনের বাবা কবির হোসেন সৌদি আরবে থাকতেন। গত ৪ মার্চ সে দেশে ফিরে আসেন। রাজাপুর সদরের বাঘরি বাসায় এসে তিনি মেয়ের সঙ্গে মায়ের অমানবিক আচরণের ঘটনায় গত ৭ মার্চ তাঁর স্ত্রী গোলেনূর বেগমকে তালাক নোটিশ পাঠায়। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে গোলেনূর বেগম গত ২২ মার্চ ঝালকাঠির জ্যেষ্ঠ বিচারিক হাকিম আদালতে শারমিনের বাবার নামে এক লাখ টাকা যৌতুক দাবির অভিযোগ এনে মামলা করেন। আদালত কবির হোসেনের নামে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি করেন। রাজাপুর থানা পুলিশ বাঘরি এলাকার ভাড়া করা বাসা থেকে শারমিনের বাবাকে গ্রেপ্তার করে।
উল্লেখ্য নবম শেণিতে পড়া অবস্থায় ২০১৫ সালের ৬ আগস্ট জোর করে মায়ের কথিত প্রেমিক স্বপন খলিফার সঙ্গে শারমিনকে বাল্য বিয়ে দেওয়ার চেষ্টা করা হয়েছিল। এ ঘটনায় ১৬ আগস্ট রাতে শারমিন আক্তার বাদী হয়ে রাজাপুর থানায় একটি মামলা করেন। মামলায় শারমিনের মা গোলেনূর বেগম ও বাল্য বিয়েতে আগ্রহী ব্যক্তি স্বপন খলিফাকে আসামী করা হয়। মামলায় গোলেনূর বেগম আদালত থেকে জামিন নিয়ে রাজাপুরের আঙ্গারিয়া গ্রামের বাড়িতে থাকেন।